বাংলাদেশ দলে স্লেজিং স্পেশালিষ্ট কেউ নেই’

বাংলাদেশ দলে স্লেজিং স্পেশালিষ্ট কেউ নেই’
অনলাইন ডেস্ক ১৭:২০, ১৮ মে, ২০২০

খেলার মাঠে প্রতিপক্ষকে বিব্রত করারই নামই স্লেজিং। এই স্লেজিং করাকে ক্রিকেটের ঐতিহ্যবাহী একটি অংশ হিসেবে বিবেচনা করা হয়। ক্রিকেট খেলা হবে আর সেখানে স্লেজিং হবে না সেটা চিন্তা করাটাই দুষ্কর। এই স্লেজিংয়ের মাধ্যমে প্রতিপক্ষের খেলোয়াড়দের চাপে রাখা যায় বলেই এটা খেলার একটা অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

বিশ্বের ক্রিকেট দলগুলোর ভেতর স্লেজিংয়ে খ্যাতি রয়েছে অস্ট্রেলিয়া এবং ভারতের সব চেয়ে বেশি। তবে সব থেকে এগিয়ে রয়েছেন ভারতের ক্রিকেটাররা। ভারতীয় ক্রিকেটাররা বেশ দুর্দান্ত ভাবে করেন এই কাজটি। তবে এই কাজে খুব একটা পারদর্শী নয় বাংলাদেশ।

টাইগার ক্রিকেটাররাও মাঠে স্লেজিং করে থাকেন বলে স্বীকার করেছেন জাতীয় দলের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। সম্প্রতি একটি ফেসবুক লাইভে এসে তিনি এ কথা জানান।

লাইভের সঞ্চালক মুশফিককে প্রশ্ন করেছিলেন, ‘আচ্ছা, আপনারা কি স্লেজিং করেন না? এই কাজে সবচেয়ে বেশি দক্ষ কে? টিম মিটিংয়ে কাউকে দায়িত্ব দেয়া হয় না? প্রতিপক্ষ ক্রিকেটারদের উত্তপ্ত করার দায়িত্ব কার কার ওপর বর্তানো আছে?’

এসব প্রশ্নের উত্তরে মুশফিক জানান, আমরাও স্লেজিং করি এবং এই কাজে তিনি নিজেও নাকি কম যান না।

এ সময় ২০০৭ বিশ্বকাপে সৌরভ গাঙ্গুলিকে স্লেজিংয়ের স্মৃতিচারণ করেন মুশি। তিনি বলেন, ‘আমি বলেছিলাম- দাদা, অনেক রান তো করলেন। আমরা ছোট ভাই, আমাদের সাথে একটু কম রান করেন না দাদা। প্রথমে কিছু না বললেও পরের বার বলে ওঠেন- তোরা এখন আর ছোট নেই। তোরা এখন অনেক বড় হয়ে গেছিস।’

মুশফিক বলেন, ‘আসলে আমাদের দলের স্লেজিং সে ভাবে হয় না। আমাদের উগ্র স্লেজিং করার কেউ নেই। তামিম মাঝে মাঝে বলে। তবে সেটাও কৌশলে। নাসিরও অনেক কথা বলতো। নাসির তো সমানে বাংলা বলতেই থাকতো। তার অঙ্গভঙ্গি একটু অন্যরকম থাকতো। এছাড়া আরও কয়েকজন আছে। মাঝে মধ্যে একটু বলতো। এমনিতে আমাদের দলে অস্ট্রেলিয়ানদের মত স্লেজিং স্পেশালিষ্ট কেউ নেই।’

     More News Of This Category

Our Like Page