করোনা প্রকোপের মধ্যেই যুক্তরাজ্যের একটি হাসপাতালেই সম্পন্ন হলো ডাক্তার ও নার্সের বিয়ে

করোনা প্রকোপের মধ্যেই যুক্তরাজ্যের একটি হাসপাতালেই সম্পন্ন হলো ডাক্তার ও নার্সের নিয়ে । করোনা ভাইরাসের কারণে একবার বিয়ের অনুষ্ঠান বাতিল করেছিলেন ওই দম্পতি । পরে আবার সেই তারিখ এগিয়ে নিয়ে এসে তারা যে হাসপাতালে কাজ করেন সেখানেই বিয়ে করলেন এই যুগল।

৩৪ বছর বয়সী নার্স জান টিপিং এবং ৩০ বছর বয়সী চিকিৎসক আন্নালান নাভারাতনাম লন্ডনের সেন্ট থমাস হাসপাতালের গ্রেড টু তালিকাভুক্ত একটি চ্যাপেলে গত ২৪ এপ্রিল বিয়ে করেন। তাদের এই বিয়ের অনুষ্ঠান লাইভ-স্ট্রিমিংয়ের মাধ্যমে সম্প্রচার করা হয় যাতে স্বজনরা বাড়িতে বসেই অংশ নেন।

এই যুগল জানায়, এখনো পর্যন্ত সবাই সুস্থ থাকার কারণে তারা বিয়ের এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, টিপিং এবং নাভারাতনাম তাদের আসল বিয়ের অনুষ্ঠান বাতিল করেছিলেন। আগামী অগাস্টে তাদের ওই মূল বিয়ের পরিকল্পনা ছিল। তারা ভেবেছিলেন যে, নর্দার্ন আয়ারল্যান্ড আর শ্রীলঙ্কা থেকে তাদের স্বজনরা হয়তো আসতে পারবেন না। আর এ জন্য তারা তাদের বিয়ের অনুষ্ঠান এগিয়ে নিয়ে আসার সিদ্ধান্ত নেন।

টিপিং একজন জরুরি সেবা বিভাগের নার্স। তিনি বলেন, আমরা নিশ্চিত করতে চেয়েছিলাম যাতে সবাই আনন্দ করতে পারে, সবাই এখনো সুস্থ, যদিও আমাদের স্বজনরা আমাদেরকে স্ক্রিনেই দেখছে।

টিপিং’র স্বামী নাভারাতনাম একজন চিকিৎসক হিসেবে সেন্ট থমাস হাসপাতালে এক বছর ধরে কাজ করছেন। তিনি বলেন, খুবই খুশি কারণ আমরা একে অপরের কাছে অঙ্গীকারবদ্ধ হতে পেরেছি।

নব দম্পতির জন্য ভার্চুয়াল অভ্যর্থনা, নাচ এবং বক্তব্যের ব্যবস্থা করা হয়। রেভারেন্ড মিয়া হিলবর্ন যিনি বিয়ের পুরো বিষয়টি পরিচালনা করেছেন তিনি বলেন, এই আয়োজনের অংশ হতে পেরে তিনি শিহরিত।

এদিকে বিয়ের খবর শোনার পর এক টুইটে স্বাস্থ্য মন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক লিখেছেন, এটা চমৎকার।

     More News Of This Category

Our Like Page